Short film "The Medicine of The Bad" brings the middle class family to the center of the lockdown

লকডাউনের কঠিন সময়ে মধ্যবিত্ত পরিবারকে কেন্দ্র করে অপরাজিতা নিয়ে এলো শর্ট ফিল্ম “দুঃসময়ের ওষুধ”

ভাস্বতী দাশ, প্রতিনিধি – লকডাউন অবস্থায় গৃহবন্দি সকলেই। মানুষের দৈনন্দিন জীবনে এসেছে বহু পরিবর্তন। বাইরে বেরোনো বন্ধ। বাইরের খাবার খাওয়া বন্ধ। বিশেষত চা এর দোকানে আড্ডা দেওয়া বন্ধ। কিন্তু যারা গৃহবধূ তাদের রোজগার রুটিনটা কিন্তু সেই একই রকম হতেছে। বরং কাজ আরও বেড়েছে। প্রতিদিন আসছে নিত্য নতুন খাবার তৈরির ফায়ফর্মায়েস। এই বিষয়টিকে মাথায় রেখেই লক ডাউন অবস্থায় এলো নতুন শর্টফিল্ম।

এই সিনেমায় অভিনয় করেছেন অপরাজিতা আঢ্য। মূলত মধ্যবিত্ত পরিবারকে কেন্দ্র করেই নির্মিত হয়েছে দুঃসময়ের ওষুধ শর্ট ফিল্মটি। এছাড়াও আগেকার দিনে সব পরিবারই হত যৌথ পরিবার। সেখানে দিদা, দাদু, পিসি সকলেই একসাথে থাকতো। মানতে হত অনেক নিয়ম কানন। বাইরে থেকে এসে পা ধুয়ে বাড়ি ঢুকতে হত নইলে বলতো লক্ষ্মী চলে যাবে। কিন্তু বর্তমানে ওই নিয়মটা ঠিকই মানা হচ্ছে কিন্তু কারণটা অন্য শুধু।

এছাড়াও ডাক্তার, নার্স, ব্যাংক কর্মী সকলেই এই সময় সব কিছু ভুলে দেশের জন্য প্রাণপণে লড়াই করেছেন। এই দিনগুলো মানুষ যেনো ভুলে না যায়। দেশের এই কঠিন পরিস্থিতিতে লড়াই টা করছে শুধু বিজ্ঞান। লক ডাউন অবস্থাতেই ইউটিউবে মুক্তি পেলো এই ফিল্ম।